1. admin@apontelevision.com : admin :
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ০৪:৫৭ অপরাহ্ন

ভূরুঙ্গামারীতে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে স্থাপনা তৈরীর অভিযোগ

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২৩
  • ১০০ বার পঠিত

কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধি

কুড়িগ্রাম জেলার ভূরুঙ্গামারীতে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বিবাদমান জমিতে এলজিইডি কর্তৃক চৌধুরী বাজার এ চক বাজার নির্মাণ বাস্তবায়ন প্রকল্পের বিরুদ্ধে অবৈধ ভাবে নির্মান কাজ চলমান রাখার অভিযোগ উঠেছে এক প্রভাবশালী মহলের বিরুদ্ধে। সম্পত্তির মালিকানা দাবি করা ভুক্তভোগীরা জানায় উপজেলা প্রশাসন ও থানায় অভিযোগ করেও প্রতিকার পাচ্ছেন না।

নিম্ন তপশীল বর্ণিত চৌধুরী বাজার এর ০.৩৮ একর জমি গত ১০/০৭/১৯৬৯ ইং তারিখের ১১১৭০ নং রেজিষ্ট্রিকৃত দলিল মুলে ক্রয় সুত্রে ভোগ দখল করে আসতে থাকাবস্থায় মৌরশ মৃত্যুজনিত কারনে ভুক্তভোগীরা ওয়ারিশ সুত্রে উক্ত জমি প্রাপ্ত হইয়া ২টি, চৌচালা টিনের ঘর উত্তোলন করে। এমতাবস্থায় এলজিইডি কর্তৃক চৌধুরী বাজার এ চক বাজার নির্মাণ বাস্তবায়ন প্রকল্পটির কার্যক্রম শুরু করার প্রস্তুতি গ্রহণ করলে ভুক্তভোগীরা জমির বৈধ মালিক হিসাবে উক্ত কার্যক্রম বন্ধ করার জন্য এবং আর,এস রেকর্ড সংশোধনের জন্য বিজ ল্যান্ডসার্ভে ট্রাইব্যুনাল, কুড়িগ্রামে ১২৭/২৩ ইং ল্যান্ডসার্চে মোকদ্দমা আনয়ন করেন। যাহা বিচারাধীন রয়েছে।

এছাড়াও সোনাহাট ইউনিয়নের চৌধুরী বাজারের চক বাজার বাস্তবায়ন প্রকল্প স্থগিতের জন্য বিজ্ঞ যুগ্ন জেলা জজ ২য় আদালত, কুড়িগ্রামে প্রচারণী ডিক্রীর প্রার্থনায় আরও ১ টি মোকদ্দমা আনয়ন করেন। যাহার মামলা নং ০২/২৩ ইং। উভয় মোকদ্দমায় সরকার পক্ষকে বিবাদী শ্রেণীভুক্ত করে মোকদ্দমা দায়ের করা হয়। দায়েরকৃত মোকদ্দমায় সরকার পক্ষ জবাব প্রদান করিলে বিগত ২৮/০৫/২০২৩ ইং তারিখে উভয় পক্ষের শুনানী অন্তে বিজ্ঞ আদালত নালিশী জমি বাবদ Statusquo (স্থিতিবস্থা) এর আদেশ প্রদান করেন। পরবর্তীতে সরকারপক্ষ বিজ্ঞ জেলা জজ আদালতের উক্ত Statusquo (স্থিতিবস্থা) আদেশের বিপক্ষে (১৯ জুন) একখানা ৫৬/২৩ আপীল মোকদ্দমা আনয়ন করেন। বিজ্ঞ আদালত গত ০৩ আগষ্ট শুনানী অন্তে গত ৩১ আগষ্ট পর্যন্ত বিজ্ঞ আদালত, আদেশ Stay করেন। তৎপর ভুক্তভোগীরা জবাব প্রদান করে শুনানী করিলে উভয় পক্ষের শুনানী অন্তে বিগত ৩১ আগষ্ট বিজ্ঞ জেলা জজ আদালত, কুড়িগ্রাম এর বিজ্ঞ বিচারক উক্ত Stay আদেশ বধিত করেন নাই। সেহেতু বিজ্ঞ যুগ্ম জেলা জজ ২য় আদালত, কুড়িগ্রাম এর প্রদেয় উক্ত Statusquo (স্থিতিবস্থা ) আদেশ বহাল থাকে।

বিজ্ঞ আদালতের একটি আদেশে দেখা যায়, অত্র অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞার দরখাস্ত দোতরফা সূত্রে সংশোধিত আকারে মঞ্জুর করা হলো। এতদ্বারা মূল মোকদ্দমার চূড়ান্ত নিষ্পত্তি না হওয়াতক ‘ক’ তফসিল বর্ণিত নালিশী সম্পত্তিতে উভয়পক্ষকে স্থিতিবস্থা (Status-quo) বজায় রাখার নির্দেশ দেয়া হয়।

ভুক্তভোগীরা জানায়, স্ট্যাটাসকো’ আদেশ উপক্ষো করে একটি প্রভাবশালী মহল প্রভাব খাটিয়ে চৌধুরী বাজার এ চক বাজার নির্মাণ বাস্তবায়ন প্রকল্পের নির্মাণ কাজ চালিয়ে আসছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর
All rights reserved © 2024
Design By Raytahost